সর্বশেষ

নোয়াখালীতে মন্দিরে, হিন্দুবাড়িতে, বাসের ডিপোতে ভাঙচুর অগ্নিসংযোগ, পুলিশের সাথে গোলাগুলি

নোয়াখালীতে জামায়াত-শিবিরের কর্মীরা বাড়িঘর, মন্দির ও যানবাহনে ভাংচুর, অগ্নিসংযোগ করে। বিকেল সাড়ে চারটা পর্যন্ত জেলা শহরে পুলিশের সাথে শিবির কর্মীদের সংঘর্ষ চলছে।
জামায়াত নেতা দেলোয়ার হোসেন সাঈদীর মামলার রায় ঘোষনার পর  শিবির কর্মীরা বেগমগঞ্জের রাজগঞ্জ বাজারের মন্দির, ঠাকুর বাড়ির সামনের মন্দির ও বাইন্নাবাড়ির মন্দির ভাঙচুর করে। একই সময় তারা ভূঁইয়া বাড়ি ও বনিক বাড়িতে অগ্নিসংযোগ করে। এ সময় নারীসহ ছয়জন আহত হয়।
ঘটনাস্থল থেকে খবর পেয়ে বেগমগঞ্জ সার্কেলের সহকারী পুলিশ সুপার মাহবুব আলম খান জানান, পুলিশ পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রনে আনার চেষ্টা করছে।

নোয়াখালী জেলা শহরে জামায়াত-শিবির কর্মীদের সঙ্গে পুলিশের সংঘর্ষ চলছে। এসময় শিবির কর্মীরা বেশকিছু ককটেলের বিস্ফোরণ ঘটায়। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রনে আনতে পুলিশ শতাধিক রাউন্ড শর্টগানের গুলি বর্ষণ করে। এক পর্যায়ে শিবির কর্মীরা দত্তেরহাটে আল-আমিন বাসের ডিপোতে বারটি বাস ভাঙচুর করে এবং চারটি বাসে অগ্নিসংযোগ করে। প্রতিবেদন লেখা পর্যন্ত শিবিরের সঙ্গে পুলিশ ও ছাত্রলীগের গোলাগুলি চলছে।

ভারপ্রাপ্ত পুলিশ সুপার (এসপি) মাহবুব রশীদ বলেন, ঘটনাস্থলে অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে। পুলিশ পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রনে আনার চেষ্টা করছে।


  • আবু নাছের মঞ্জু

লোকসংবাদ | Loksangbad | The First Bangla Online Newspaper from Noakhali সাজসজ্জা করেছেন মুকুল | কপিরাইট © ২০১৫ | লোকসংবাদ | ব্লগার

Bim থেকে নেওয়া থিমের ছবিগুলি. Blogger দ্বারা পরিচালিত.