সর্বশেষ

নোয়াখালী পৌরসভার ১৪ কেন্দ্রে ভোটগ্রহণ চলছে

নোয়াখালী পৌরসভার ১৪টি কেন্দ্রের ভোটগ্রহণ চলছে। সকাল ৮টা থেকে শান্তিপুর্ণ পরিবেশে লাইনে দাঁড়িয়ে ভোটারদেরকে তাঁদের ভোটাধিকার প্রয়োগ করতে দেখা যায়। ভোটগ্রহণ চলবে একটানা বিকেল ৪টা পর্যন্ত। নোয়াখালী পৌরসভার ১৪টি কেন্দ্রের মোট ভোটার সংখ্যা ৩২ হাজার ৮১৯ জন।
শান্তিপূর্ণভাবে ভোটগ্রহণ নিশ্চিত করতে প্রশাসনের পক্ষ থেকে ব্যাপক প্রস্তুতি লক্ষ্য করা গেছে।
রিটার্নিং অফিসার মো. আনোয়ার হোসেন বলেন, ‘ভোটকেন্দ্র সহ আশপাশের এলাকায় আইন-শৃঙ্খলা রক্ষায় বিশেষ নিরাপত্তা ব্যবস্থা গ্রহণ করা হয়েছে। কেন্দ্র ভিত্তিক নির্বাহী ম্যজিস্ট্রেটদের পাশাপাশি চারজন নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেটের নেতৃত্বে র‌্যাবের ৬০ জন এবং বিজিবি’র ৪০ জনের একটি স্টাইকিং ফোর্স ভোটগ্রহণ সম্পন্ন না হওয়া পর্যন্ত মাঠে থাকবেন’।

পুলিশ সুপার হারুনুর রশীদ হাযারী (এসপি)জানান, প্রতিকেন্দ্রে একজন অফিসারে নেতৃত্বে ৩১জন পুলিশ ও ১০ জন করে আনসার সদস্য নিয়োজিত রয়েছেন।

এরআগে নোয়াখালী পৌরসভা নির্বাচনের রিটার্নিং অফিসার হিসেবে ইসি থেকে কুমিল্লা অঞ্চলের উপ নির্বাচন কমিশনার মো. আনোয়ার হোসেনকে দায়িত্ব দেওয়া হয়। এছাড়া নোয়াখালী জেলা সদরের বাইরের বিভিন্ন উপজেলা এবং ঢাকা, নারায়নগঞ্জ, ব্রক্ষমনবাড়িয়া, চাঁদপুর, ফেনীসহ বাইরের বিভিন্ন জেলা থেকে কমিশনের নিজস্ব ১৪ জন কর্মকর্তাকে ১৪টি ভোটকেন্দ্রের প্রিজাইডিং অফিসার হিসেবে দায়িত্ব দেওয়া হয়।

গত ১৮ জানুয়ারি নোয়াখালী নির্বাচন চলাকালে ব্যালট ছিনতাই, নির্বাচনী কর্মকর্তাদের মারধরসহ বিভিন্ন অনিয়ম ও সহিংসতার অভিযোগে ২৫টি কেন্দ্রের মধ্যে ১৭টির ভোটগ্রহণ স্থগিত করে নির্বাচন কমিশন। এরপর কমিশনের নিজস্ব ও বিচার বিভাগীয় তদন্তের পর স্থগিত হয়ে যাওয়া ১৪টি কেন্দ্রে ভোট গ্রহণের সিদ্ধান্ত হয়। বাকী তিন কেন্দ্রের ফলাফলের বৈধতা দিয়ে  তা গেজেট আকারে প্রকাশের উদ্যোগ নেয় কমিশন। এরপর বিএনপি সমর্থিত মেয়র প্রার্থী হারুনুর রশিদ আজাদের রিট আবেদনের পে্িরক্ষতে হাইকোর্ট ওই তিন কেন্দ্রের ফলাফল ঘোষণাসহ সকল কার্যক্রম স্থগিতের আদেশ দেন।
নোয়াখালীতে পৌরসভা নির্বাচনে কেন্দ্র দখল, পোলিং এজেন্টদের মারধর ও ভোট কারচুপির অভিযোগে বিএনপি সমর্থিত মেয়র প্রার্থীরা ভোট বর্জনের ঘোষনা দিয়েছিলেন। পরদিন গত ১৯ জানুয়ারি দলটির আহ্বানে পুরো জেলায় সকাল সন্ধ্যা হরতাল পালন করা হয়েছিল।

লোকসংবাদ | Loksangbad | The First Bangla Online Newspaper from Noakhali সাজসজ্জা করেছেন মুকুল | কপিরাইট © ২০১৫ | লোকসংবাদ | ব্লগার

Bim থেকে নেওয়া থিমের ছবিগুলি. Blogger দ্বারা পরিচালিত.