সর্বশেষ

কোম্পানীগঞ্জে আ’লীগের দু’গ্রুপের সংর্ঘষে আহত-৩৫

মোঃ শরফুদ্দিন শাহীন, কোম্পানীগঞ্জ থেকে:
নোয়াখালীর কোম্পানীগঞ্জ উপজেলার চরএলাহী ইউনিয়নের গাংচিল গ্রামে শুক্রবার সকালে নব নির্মিত রাস্তার ইট সাপ্লাই দেওয়াকে কেন্দ্র করে আ’লীগের দু’গ্রুপের মধ্যে দফায় দফায় ৩ ঘন্টা ব্যাপী রক্তক্ষয়ি সংর্ঘষে উভয় পক্ষের ৩৫জন আহত হয়েছে। আহতদের মধ্যে ৫জনকে কোম্পানীগঞ্জ স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স ও ২ জনকে নোয়াখালী জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। তাদের অবস্থা আশংকা জনক। পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনেন।
এলাকাবাসী ও পুলিশ সূত্র থেকে জানাযায়, শুক্রবার সকালে উপজেলার গাংচিল গ্রামের যুবলীগ নেতা মোজ্জামেল হোসেন ওই এলাকার নব নির্মিত রাস্তার ঠিকাদারের কেয়াটেকার দুলাল নামে এক যুবককে তার দোকানে নিয়ে হাত পা বেঁধে বেদম মারধর করে। তাকে তার দোকানে সকাল ৮টা থেকে ১১টা পর্যন্ত আটক করে রাখে। ওই ঘটনার জের ধরে যুবলীগ নেতা মোজাম্মেল ও যুবলীগ নেতা ইকবাল গ্রুপের মধে সকাল ৯টা থেকে দুপুর ১২টার দফায় দফায় রক্তক্ষয়ি তুমূল সংর্ঘষ হয়। এ ঘটনায় উভয় পক্ষের ৩৫জন গুরুত্বর আহত হয়। আহতদের মধ্যে ইকবাল গ্রুফের আক্তার হোসেন (৪৩), বাছের (৩৫), নোমান (২৮). ইকবাল (৩২), ইসমাইল (২৫), আবদুল (২৫), মোঃ আলী (২৭), দুলাল (২৫), মোস্তফা (৫০), সামছুদ্দিন (২০), হাবিব উল্ল্যা (৪০), বশির উল্যাহ (৫৫), সাইফুল্লা (৩৫) এবং মোজাম্মেল গ্রুপের বাদী হাসেম (৬৭), এনায়েত উল্যাহ (৪৩) মিলন (৪৫), আবুল কালাম কালু মোল্লা (৩৫), রফিক উল্যাহ (৪৬), সিরাজ (২৬), শাহাজাদা (২৫), সিরাজুল ইসলাম (৩০), বাকের হোসেন (৪০), মোজাম্মেল হোসেন (৩২), দেলোয়ার হোসেন (৩৫)। এদের মধ্যে আবুল হাসেম ও এনায়েত উল্যার অবস্থা আশংকা জনক। তাদেরকে নোয়াখালী জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

গাংচিল গ্রামের কিল্লা রোড বাজার ৭ কিলোমিটার পাকা রাস্তার কাজে প্রথমে যুবলীগ নেতা মোজাম্মেল হোসেন ইট সাপ্লাই দিতেন ঠিকাদারকে। সময় মত ইট সাপ্লাই দিতে না পারায় ঠিকাদার মোজাম্মেলের কাছ থেকে ইট নেয়া বন্ধ করে দেয়। যুবলীগ নেতা ইকবালের বড় ভাই আক্তারুল ইসলাম মিরনের মাধ্যমে ওই রাস্তায় ইট সরবরাহ করে ঠিকাদার প্রতিষ্ঠান। ইট সাপ্লাই দেওয়াকে কেন্দ্র করে এ ঘটনা ঘটেছে বলে জানাযায়। পুলিশ সংবাদ পেয়ে দ্রুত ঘটনাস্থলে গিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রনে আনে। এ ঘটনায় এলাকায় চরম উত্তোজনা বিরাজ করছে। এলাকাবাসীরা আতঙ্কে রয়েছে। 

মোঃ শরফুদ্দিন শাহীন

লোকসংবাদ | Loksangbad | The First Bangla Online Newspaper from Noakhali সাজসজ্জা করেছেন মুকুল | কপিরাইট © ২০১৫ | লোকসংবাদ | ব্লগার

Bim থেকে নেওয়া থিমের ছবিগুলি. Blogger দ্বারা পরিচালিত.