সর্বশেষ

নোয়াখালীতে মাদ্রাসায় সন্ত্রাসী হামলায় ১শিক্ষক ও ৪ শিক্ষার্থী আহত

নোয়াখালী সদর উপজেলার অশ্বদিয়া নূরুল উলুম ফারুকিয়া দাখিল মাদ্রাসায় সোমবার সকালে একদল সন্ত্রাসী হামলা চালিয়ে মাদ্রসার শিক্ষক আবদুল মান্নানসহ ৪ শিক্ষার্থীকে আহত করে। আহত শিক্ষার্থীরা হচ্ছে দশম শ্রেণীর ছাত্রী শাহেদা আক্তার ও শাহেলা হক, সপ্তম শ্রেণীর ছাত্রী ইয়াসমিন আক্তার ও একই ক্লাসের ছাত্র আবদুর রহমান। আহতদের মধ্যে শিক্ষক আবদুল মান্নানকে নোয়াখালী জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। বাকীদের স্থানীয়ভাবে চিকিৎসা দেয়া হচ্ছে। মাদ্রসার শিক্ষক, শিক্ষার্থী ও পরিচালনা কমিটির সদস্যদের অভিযোগ বরখাস্তকৃত সুপার ওমর ফারুকের প্রত্যক্ষ ইন্দনে এ হামলার ঘটনা ঘটে। এ ঘটনায় পুরো এলাকায় উত্তেজনা বিরাজ করছে।মাদ্রসার ভারপ্রাপ্ত সুপার শামসুদ্দোহা কয়েকজন শিক্ষার্থী ও পরিচালনা কমিটির সদস্যরা জানান, অশ্বদিয়া নূরুল উলুম ফারুকিয়া দাখিল মাদ্রাসার বরখাস্তকৃত সুপার ওমর ফারুকের বিরুদ্ধে প্রতারণা, জালিয়াতি, অর্থ আত্মসাতসহ বিভিন্ন অভিযোগে একই মাদ্রসার শিক্ষক আবদুল মান্নান ২০০৪ সালে অতিরিক্তি চিপ জুডিশিয়াল ম্যাজিষ্ট্রেট আদালতে একটি মামলা দায়ের করেন। আদালত আগামী ২৫ জানুয়ারি এ মামলার স্বাক্ষ গ্রহণের দিন ধার্য্য করে। এরই মধ্যে বরখাস্তকৃত সুপার ওমর ফারুক মামলা তুলে নেয়ার জন্য বিভিন্ন সময় বাদী আবদুল মান্নানকে হুমকি দিয়ে আসছিলেন। হুমকিতে কাজ না হওয়ায় সোমবার সকালে ওমর ফারুকের ভাই মোশাররফ হোসেন ওরফে মিয়াধন, নূর হোসেন ও দেলোয়ারসহ একদল সন্ত্রাসী মাদ্রসা ক্যাম্পাসে ডুকে অফিস রুম থেকে সহকারী শিক্ষক আবদুল মান্নানকে বের করে এনে বেধড়ক পেটাতে থাকে। এসময় মাদ্রসার ছাত্রছাত্রীরা তাকে বাঁচাতে এগিয়ে আসলে সন্ত্রাসীরা তাদের উপরও হামলা চালায়। এসময় দশম শ্রেণীর ছাত্রী শাহেদা আক্তার ও শাহেলা হক, সপ্তম শ্রেণীর ছাত্রী ইয়াসমিন আক্তার ও একই ক্লাসের ছাত্র আবদুর রহমানআহত হয়। পরে স্থানীয় লোকজনের সহায়তায় শিক্ষক শিক্ষার্থীরা আহত শিক্ষক আবদুল মান্নানকে উদ্ধার করে হাসপালে ভর্তি করেন। মাদ্রসা পরিচালনা কমিটির সদস্য এডভোকেট সাহাব উদ্দিন জানান, বিষয়টি তারা তাৎক্ষনিক মাদ্রসা পরিচালনা কমিটির সভাপতি সদা উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তাকে জানিয়েছেন। এ ব্যাপারে তারা থানায় মামলার প্রস্তুতি নিচ্ছেন।

লোকসংবাদ | Loksangbad | The First Bangla Online Newspaper from Noakhali সাজসজ্জা করেছেন মুকুল | কপিরাইট © ২০১৫ | লোকসংবাদ | ব্লগার

Bim থেকে নেওয়া থিমের ছবিগুলি. Blogger দ্বারা পরিচালিত.